বাংলা নিউজ ব্যুরো : পুলওয়ামা জঙ্গি হামলার বদলা নিতে ২৬ শে ফেব্রুয়ারি ভারতীয় সেনাবাহিনী পাকিস্তানে বোমা ফেলে জঙ্গিদের প্রশিক্ষণ শিবির গুড়িয়ে দেয়ার দাবি করেন। এই দাবি পাকিস্তান বারবার অস্বীকার করে আসছিল। পাকিস্তান দাবি করে- ভারতের সেনাবাহিনী এসেছিল ঠিক ই কিন্তু তেমন কোন ক্ষতি করতে পারে নি।


বালাকোটে কিছু গাছের ক্ষতি হয়েছে। যদিও ভারত সরকারের তরফ থেকে দাবি করা হয়েছে যে এই সার্জিক্যাল স্ট্রাইক এর ফলে ২০০ থেকে ৩০০ জঙ্গির মৃত্যু হয়েছে। আজ ভারতবর্ষে লোকসভা নির্বাচন।এই ভোটের দিনে বিবিসি সহ বেশ কিছু আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যমকে বালাকোটের নিয়ে গেল পাকিস্তানের সেনাবাহিনী।


পাক সেনার মুখপাত্র জেনারেল গফুর বলেন – ভারত যে জঙ্গি শিবির ধ্বংসের অভিযোগ এনেছে তা সম্পূর্ণ ভূয়া। ভারতীয় হামলায় বালাকোটের কিছু গাছ ধ্বংস হয়েছে দাবি করেন তিনি।


সংবাদ মাধ্যমের তরফে নয়াদিল্লির সাথে যোগাযোগ করা হয়েছিল। নয়াদিল্লি জানিয়ে দিয়েছে -সেদিনের হামলায় টার্গেট পূরণ হয়েছিল।কিন্তু এতদিন চলে যাওয়ার পর হঠাৎ করে ভোটের দিনই বালাকোটে বিদেশি প্রতিনিধিদের কেন নিয়ে গেল পাকিস্তান ? বালাকোটের যাবা গ্রামে যে এলাকায় ভারতীয় সেনাবাহিনী বোমা হামলা করেছে বলে দাবি করেছিল সেই এলাকার বেশকিছু মাদ্রাসা ও বাড়ি গুলিতে আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যমগুলোকে পাক সেনার নিরাপত্তা নিয়ে যাওয়া হয়েছিল। সেখানে কিছু মাটিতে পড়ে থাকা গাছ এবং কিছু আংশিক ক্ষতিগ্রস্ত বাড়ি দেখতে পাওয়া গিয়েছে বলে সংবাদ মাধ্যমগুলির রিপোর্ট।

Leave a Reply